ফাইনালে গোল করে পেলের পাশে এমবাপে

পেলের পর প্রথম টিন এজার হিসেবে বিশ্বকাপে জোড়া গোল করেছিলেন কাইলিয়ান এমবাপে। আর্জেন্টিনার বিপক্ষে শেষ ষোলোতে ওই কৃতিত্ব গড়েন তিনি। ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে ফাইনাল খেলে তো বটেই, গোল করে আবারও ব্রাজিলিয়ান গ্রেটের পাশে বসলেন ফ্রান্সের স্ট্রাইকার। এই বিশ্বকাপের সেরা তরুণ খেলোয়াড়ের পুরস্কারও জিতেছেন এমবাপে। পেলের পর বিশ্বকাপ ফাইনালে সর্বকনিষ্ঠ গোলদাতা হলেন এমবাপে। ৬৫ মিনিটে চতুর্থ গোল করেন ১৯ বছর বয়সী স্ট্রাইকার।
১৯৫৮ সালের ফাইনালে গোল করেছিলেন ১৭ বছর বয়সী পেলে। ৬০ বছর পর সবচেয়ে কম বয়সী গোলদাতা হিসেবে তার পরে আছেন এমবাপে। এর আগে আর্জেন্টিনার বিপক্ষে শেষ ষোলোতে দুই গোল করেছিলেন ফ্রান্সের এই পিএসজি স্ট্রাইকার। তাতে জোড়া গোল করা সর্বকনিষ্ঠ খেলোয়াড়ের মর্যাদা পান এমবাপে। ফাইনালের একাদশে জায়গা পেয়েই ইতিহাস গড়েন ফ্রান্সের এই তরুণ। ১৯৫৮ সালে ব্রাজিলের পেলে ও ১৯৮২ সালে ইতালির জিউসেপ্পে বারগোমির পর তৃতীয় সর্বকনিষ্ঠ হিসেবে বিশ্বকাপ ফাইনালে খেললেন এমবাপে। এদিন তৃতীয় গোল করে পল পগবাও করেছেন রেকর্ড। ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে বিশ্বকাপ ফাইনালে গোল করলেন তিনি।

SHARE

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here