পিলখানা হত্যা: ফাঁসির রায় বহাল যাদের

বিচারপতি মো. শওকত হোসেনের নেতৃত্বাধীন তিন সদস্যের হাই কোর্ট বেঞ্চ সোমবার এই রায় ঘোষণা করে।

মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি সংখ্যার দিক দিয়ে দেশের ইতিহাসে সবচেয়ে বড় এ মামলায় হাই কোর্টের প্রায় দশ হাজার পৃষ্ঠার রায় ঘোষণা করা হয় দুই দিন ধরে।

২০০৯ সালে ঢাকার পিলখানায় বিডিআর সদর দপ্তরে বিদ্রোহের ওই ঘটনায় ৫৭ সেনা কর্মকর্তাসহ ৭৪ জন নিহত হন। এ মামলার রায়ে ঢাকার জজ আদালত ২০১৩ সালে ১৫২ জনকে মৃত্যুদণ্ড দেয়, যাবজ্জীবন হয় ১৬০ জনের।

আপিল ও ডেথ রেফারেন্সের শুনানি শেষে হাই কোর্ট সোমবার ১৩৯ জনের মৃত্যুদণ্ড বহাল রাখে। এছাড়া ১৮৫ জনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছে এবং ২২৮ জনের বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড হয়।

যাদের ভাগ্যে সর্বোচ্চ সাজা

ডিএডি তৌহিদুল আলম সিপাহি মো. আতিকুর রহমান
ডিএডি মো. নাছির উদ্দিন খান সিপাহি ড্রাইভার মো. হাবিবুর রহমান
ডিএডি মীর্জা হাবিবুর রহমান হাবিলদার ড্রাইভার মো. আবদুস সালাম খান
ডিএডি আ. জলিল সিপাহি মো. তারিকুল
সিপাহি মো. সেলিম রেজা হাবিলদার  মাসুদ ইকবাল
সিপাহি মো. শাহ আলম নায়েক মো. আবদুল করিম
সুবেদার মেজর গোফরান মল্লিক হাবিলদার মো. আক্তার আলী
সিপাহি এস এম আলতাফ হোসেন হাবিলদার মো. শফিকুল ইসলাম
সিপাহি মো. সাজ্জাদ হোসেন নায়েব সুবেদার আবুল খায়ের
সিপাহি মো. কাজল আলী হাবিলদার  মো. জাকির হোসেন তালুকদার
সিপাহি মো. আব্দুল মতিন সিপাহি মো. সাইফুল ইসলাম
ল্যান্স নায়েক মো. শাহ আলম হাবিলদার মো. আবুল বাসার
হাবিলদার মো. আবু তাহের সুবেদার  মো. ইউসুফ আলী খান
সিপাহি মো. আজিম পাটোয়ারী নায়েব সুবেদার  মো. তোরাব হোসেন খান
সিপাহি মো. রেজাউল করিম নায়েক মো. নজরুল ইসলাম সরদার
সিপাহি রফিকুল ইসলাম হাবিলদার মো. হুমায়ুন কবির  আজাদ
সিপাহি মো. মিজানুর রহমান রুস্তম হাবিলদার মো. ওমর আলী মোল্লা
হাবিলদার রফিকুল ইসলাম সিপাহি রাজু মারমা
ল্যান্স নায়েক (সিগন্যাল) মো. জাকারিয়া মোল্লা সিপাহি আল মাসুম
ল্যান্স নায়েক মো. আবদুল করিম নায়েক মো. শফিকুল ইসলাম ওরফে শফি
ল্যান্স নায়েক মো. শাহাবুদ্দিন তালুকদার হাবিলদার  জসিম উদ্দিন খান ওরফে ছোট ধলা
সিপাহি মো. হাবিবুর রহমান সিপাহি মো. জিয়াউল হক
সিপাহি মো. জিয়াউল হক সিপাহি মো. ওয়াহিদুল ইসলাম
সিপাহি রুবেল মিয়া নায়েক ফিরোজ মিয়া
হাবিলদার সহকারী খন্দকার মনিরুজ্জামান সিপাহি মো. শাহীনুর আল মামুন
সিপাহি মো. আজাদ খান নায়েক মো. নুরুল ইসলাম
সিপাহি খন্দকার শাহাদাত হোসেন নায়েক শেখ মো. শহিদুর রহমান
সিপাহি মো. ইমরান চৌধুরী সিপাহি মো. মহসিন আলী
ল্যান্স নায়েক মো. ইকরামুল ইসলাম সিপাহি এস এম সাইফুজ্জামান
সিগন্যালম্যান মো. আবুল বাশার সিপাহি উত্তম বড়ুয়া
সিপাহি শেখ মো. আইয়ুব আলী নায়েব সুবেদার মো. কবির উদ্দিন
সিপাহি মো. ওবায়দুল ইসলাম নায়েব সুবেদার মো. আবদুল বাতেন
সিপাহি মো. শামীম আল-মামুন সিপাহি এস এম রেজওয়ান আহম্মেদ
সিপাহি মো. সিদ্দিক আলম সিপাহি মো. নাজমুল হোসাইন
সিপাহি মো. আমিনুল ইসলাম সুবেদার মো. আব্দুল বারী
সিপাহি মো. সাইফুল ইসলাম সিপাহি মো. আমিনার রহমান
সিপাহি মো. রিয়ান আহাম্মদ সিপাহি মো. জাহিদুল ইসলাম
সিপাহি মো. রাজিবুল হাসান সিপাহি রাখাল চন্দ্র দাস
সিপাহি মো. সুমন মিয়া নায়েক মো. রফিকুল ইসলাম
সিপাহি মো. হারুনর রশিদ মিয়া সিপাহি মো. এরশাদ আলী ওরফে এরশাদ আলী
সিপাহি মো. আতোয়ার রহমান ল্যান্স নায়েক মো. হাবিবুল্লাল বাহার
সিপাহি মো. ইব্রাহিম নায়েক (চালক) মো. নজরুল ইসলাম
সিপাহি মো. কামাল মোল্লা নায়েক মো. আসাদুজ্জামান মোল্লা
সিপাহি মো. আব্দুল মুহিত সিপাহি মো. মাইন উদ্দিন
সিপাহি মো. রমজান আলী সিপাহি মো. হাসিবুল হাসান
সিপাহি মো. শাহীন সরকার সিপাহি পল্টন চাকমা
নায়েক সুবেদার শাহজাহান আলী সিপাহি মিজানুর রহমান
হাবিলদার মো. ইউসুফ আলী ওরফে পিছলা ইউসুফ সিপাহি মো. মুকুল আলম
সিপাহি মো. বজলুর রহমান সিপাহি মো. বাকী বিল্লাহ
ল্যান্স নায়েক মো. আনোয়ারুল ইসলাম সিপাহি মো. নুরুল আলম
হাবিলদার জালালউদ্দিন আহমেদ ল্যান্স নায়েক হামিদুল ইসলাম
সিপাহি মো. আলিম রেজা সিপাহি আনিসুর রহমান
হাবিলদার শাহজালাল সিপাহি মকবুল হোসেন
সুবেদার মো. খন্দকার একরামুল হক সিপাহি মো. সালাউদ্দিন
নায়েব সুবেদার মো. সাইদুর রহমান ল্যান্স নায়েক মো. রেজাউল করিম
সুবেদার মেজর মো. শহিদুর রহমান ডিএডি মো. নুরুল হুদা
নায়েব সুবেদার মো. আজিজ মিয়া নায়েক সুবেদার মো. ইসলাম উদ্দিন
সিপাহি মো. কাজী আরাফাত হোসেন ল্যান্স নায়েক মোজাম্মেল
সিপাহি মো. হায়দার আলী শেখ হাবিলদার দাউদ আলী বিশ্বাস
সিপাহি মো. আবুল বাশার সিপাহি জসিদ উদ্দিন
নায়েব সুবেদার মো. ফজলুল করিম নায়েক শাহী আক্তার
হাবিলদার মো. আনিসুজ্জামান ল্যান্স নায়েক মজিবর রহমান
সিপাহি মতিউর রহমান ল্যান্স নায়েক আনোয়ার হোসেন
নায়েক (সিগন্যাল) মো. ওয়াজেদুল ইসলাম ল্যান্স নায়েক হাসনাত কামাল
সিগন্যালম্যান মো. মনির হোসেন ল্যান্স নায়েক সহকারী ইমদাদুল হক
সিপাহি মো. মনিরুজ্জামান ল্যান্স নায়েক সহকারী সেলিম মিয়া
নায়েক মো. আবু সাঈদ আলম ল্যান্স নায়েক সহকারী নজরুল ইসলাম
সিপাহি মো. তারিকুল ইসলাম হাবিলদার বেলায়েত হোসেন
নায়েব সুবেদার ওয়ালি উল্লাহ সিপাহি আবুল কালাম আজাদ
সিপাহি মো. হারুন অর রশিদ

মৃত্যুদণ্ডের সাজা বাতিল হয়ে খালাস পেয়েছেন হাবিলদার মো. খায়রুল আলম, নায়েক সুবেদার মো. আলী, হাবিলদার  মো. বিলাল হোসেন খান ও সিপাহি মো. মেজবাহ উদ্দিন।

জজ আদালতে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের আদেশ পাওয়া ১৬০ জনের মধ্যে ১৪৬ জনের সাজা বহাল রাখা হয়েছে, ১২ জন খালাস পেয়েছেন।

বিচারিক আদালতে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড পাওয়া ২৫৬ জনের মধ্যে ২২৫ জনের ক্ষেত্রে আপিল হয়েছিল হাই কোর্টে। তাদের মধ্যে দুই জনের দুটি ধারায় মোট ১৩ বছর (১০+৩) করে,  ১৮২ জনের ১০ বছর, আটজনের সাত বছর, চারজনের তিন বছর কারাদণ্ড হয়েছে। খালাস পেয়েছেন ২৯ জন।

আপিল না হওয়ায় ২৮ আসামির ক্ষেত্রে জজ আদালতের দেওয়া ৩ থেকে ১০ বছরের কারাদণ্ড বহাল রয়েছে। ৮৪৬ জন আসামির মধ্যে সব মিলিয়ে খালাস পাচ্ছেন মোট ২৮৮ জন, আর ছয়জনের মৃত্যু হয়েছে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here